কারিনাকে গ’র্ভাব’স্থায় দেখে নিজেকে সাম’লাতে পারলেন না সাই’ফ আলি

ছোট্ট তৈমুর বড় দাদা হতে চলেছে। খুব শীঘ্রই তৈমু’রের ঘ’রে আসতে চলেছে তার খেলার সঙ্গী। কারণ ফের মা হতে চলেছেন সা’ইফের দ্বিতীয় পত্নী করিনা। বর্তমানে বলিউড বেবোর বেবি বাম্প স্পষ্ট।

তবে অ’ন্তঃসত্ত্বা কারি’নাকে দেখে নিজেকে আর সাম’লাতে পারছেন না সাইফ,কিন্তু কেনও? ২০১৬ সালের ডিসেম্ব’রে জন্ম হয় তৈমুর আলি খানের। সাইফ-কা’রিনার সন্তানকে নিয়ে ওই সময় প্রায় উৎসবে মেতে ওঠেন তাঁদের ভক্ত’রা। জন্মে’র পর থেকে তৈমুরের বেড়ে ওঠা, সবকি’ছুকেই সে’লিব্রেট করতে শুরু করেন দুই তার’কার ভক্তরা।

শুধু তাই নয়, ক্রমাগত লাই’মলাইটে থাকা তৈমুরে’র আদলে একটি পুতুলও তৈরি হয়ে যায়। যা নিয়ে জো'র শোরগোল শুরু হয়ে যায় ‘নেটিজে’নদের মধ্যে। এবার অ'পেক্ষা কা’রিনার দ্বি’তীয় সন্তান আসার। দ্বিতীয়’বার অ’ন্তঃস’ত্ত্বা হয়েও কারিনার গ্ল্যা’মা'র ঝড়ে ঝড়ে পড়ছে।

সম্প্রতি তার মে’কআপ আর্টিস্ট একটি ছবি শেয়ার করে কারি’নাকে ট্যাগ ক’রেছেন। যেখানে অ’ন্তঃস’ত্ত্বা কারি’নার গ্লামা'র চুই’য়ে চুই’য়ে পড়ছে। কিন্তু এই গ্ল্যা’মা'রে’র পিছনে রাজ কি তা হয়তো কেউ জানে না। আস’ল ব্যা’পার হলো কারি’না মনে করেন গ’র্ভা’বস্থার আগে এবং পরে ঘি খাওয়া খুবই জ’রুরি।

এটি কেবল মা নয়, সন্তা’নেরও উপকার করে। ঘি ত্বককে উজ্জ্ব’ল করতে সাহায্য করে। কিন্তু অ’তি’রিক্ত ঘি খাওয়ার জন্য প্রথম সন্তা’নের সময় অ'তিরিক্ত ওজন বেড়ে গি’য়ে’ছিল যেটা দ্বিতীয় সন্তানের সময় করতে একদম চান না অ'ভিনেত্রী। তাই বর্তমানে ৫ মাসের অ’ন্তঃস’ত্ত্বা’কালীন ডায়েটে মনোযোগ দিয়েছেন বলিউড বেবো।

আর তাতেই অ’ভিনেত্রীর গ্ল্যা’মা'র ঝড়ে ঝড়ে পড়ছে। অ'ভিনেত্রীকে ট্যাগ করা ছবি দেখতে নিজেকে আর সাম’লাতে পার’লেন না সাইফ আলি খান। মুচকি হেঁসে অ'ভি’নেত্রীর প্রশংসা করেছেন তিনি। সূত্রের খবর,সাইফ কারিনার চলতি মাসে বিবাহবার্ষিকী'। আর সেটা নাকি পতৌদি প্যালেসে অনুষ্ঠিত। বর্তমানে পতৌদি প্রাসাদে সময় কা'টা’চ্ছেন কারিনা।

কারণ তার আস’ন্ন ছবি ‘লাল সিং চা’ড্ডা’র শুটিং চলছে সেখানে। তবে, দেখা দি’য়েছে সমস্যা। কারণ কারিনা যদি বেবি বা’ম্প নিয়ে শ্যুটিং করে তা’হলে মুশ’কিল তাই ছবির সা’মঞ্জস্য ব’জায় রাখতে কারিনার বেবি বাম্প ভিএফ’এক্স দিয়ে মুছে ফেলা হবে। নইলে ছবির গ’ল্পে ধরতে পারে ছেদ,তাই এই সি’ন্ত। শোনা যা’চ্ছে যখন শুটিং ক’রেছেন করি না তখন নাকি তা’দের ছে'লেকে সা’মলাচ্ছে সাইফ।

Back to top button