সব শিক্ষার্থীকে একদিনে ক্লাসে আসতে হবে না

শি’ক্ষাপ্র’তিষ্ঠান খোলা হলেও একদিনে একটি শ্রেণির স’ব শি’ক্ষার্থীকে ক্লাসে আসতে হবে না। একটি ক্লাসে যদি ৬০ জ’ন শি’ক্ষার্থী থাকে তাহলে তাদের শিফটিং করে ক্লাসে নিয়ে আ’সা হবে। শিগগিরই এ সং’ক্রান্ত একটি নীতিমালা তৈরি করে শি’ক্ষাপ্র’তিষ্ঠানগুলো পাঠানো হবে।

শনিবার গণমাধ্যমের সা’থে আলাপকালে এস’ব ক’থা জা’নান মাধ্যমিক ও উ’চ্চ শি’ক্ষা অ’ধিদপ্তরের মহাপ’রিচালক প্রফেসর ড. সৈয়দ মো. গো'লাম ফারুক।তিনি ব’লেন, স্কুল-ক’লেজ খোলা হলেও স’ব শি’ক্ষার্থীকে একই দিনে ক্লাসে আসতে হবে না। কোন ক্লাসে কতজ’ন শি’ক্ষার্থীকে আসতে হবে সে সং’ক্রান্ত একটি নি’র্দেশনা শিগগিরই শি’ক্ষাপ্র’তিষ্ঠানে পাঠানো হবে।

এর আ’গে গত শুক্রবার (২২ জানুয়ারি) শি’ক্ষাপ্র’তিষ্ঠান খোলার প্র’স্তুতি নিতে নি’র্দেশনা দেয় মাধ্যমিক ও উ’চ্চ শি’ক্ষা অ’ধিদপ্তর (মাউশি)। ইউনিসেফের স’হায়তায় তৈরি করা ৩৯ পৃষ্ঠার ওই নি’র্দেশনায় একটি বেঞ্চে একজ’ন করে শি’ক্ষার্থী বসতে পারবে।

শি’ক্ষার্থীদের প্র’বেশ ও বেরিয়ে যাওয়ার পথ আলদা হতে হবে। ক্লাসের আয়তনের ও’প’র শি’ক্ষার্থীর সংখ্যা নির্ভর করবে। পাশাপাশি প্র’তিষ্ঠানের স’বাইকে বাধ্যতামূলক মা’স্ক প’রতে হবে। মা’স্ক সরবরাহ হবে স্কুল থেকে। এছা’ড়া হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও সাবান দিয়ে হাত ধোয়ার ব্য’বস্থা থাকবে।

স্কুলের শ্রে’ণীকক্ষ, টয়লেট, স্কুল প্রাঙ্গণ প’রিচ্ছন্ন করতে নি’র্দেশনা দেয়া হবে। বেসরকারি স্কুল নিজস্ব তহবিল থেকে খ’রচ বহ’ন করবে। আর সরকারি স্কুলগুলোর খ’রচ দেবে সরকার।

Back to top button