হতাশ ডিপিই, শিক্ষকদের উদ্দেশ্যে জরুরি নির্দেশনা

ডাক বিভাগের ডিজিটাল ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিস ‘নগদ’ এর মাধ্যমে ২০১৯-২০২০ অর্থ বছরের উপবৃত্তির চতুর্থ কিস্তি (এপ্রিল-জুন, ২০২০) বিতরণের তথ্য এন্ট্রি কার্যক্রমে হতাশা প্রকাশ করেছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর (ডিপিই)।

বৃহস্পতিবার এ বিষয়ে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর হতাশা প্রকাশ করে সংশ্লিষ্ট শিক্ষকদের আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করতে নির্দেশ দিয়েছে।অফিস আদেশে বলা হয়েছে, এখন পর্যন্ত ৫৫ হাজার ৯৫৮টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান লগইন করে ডাটা এন্ট্রির কাজ শুরু করেছে আর ৪ হাজার ৬৯৪টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ডাটা এন্ট্রি শেষ করে শিক্ষার্থীদের তথ্য উপবৃত্তির ‘নগদ’ পোর্টালের জন্য সহকারী উপজে'লা শিক্ষা অফিসার বরাবর দাখিল করেছে।

এই সংখ্যা হতাশাজনক উল্লেখ্য করে নির্দেশনায় বলা হয়, নির্ধারিত ১৭ জানুয়ারির মধ্যে এই কাজ শেষ করতে সংশ্লিষ্ট জে'লা শিক্ষা অফিসার, উপজে'লা শিক্ষা অফিসার, সহকারী উপজে'লা শিক্ষা অফিসার, প্রধান শিক্ষক ও মনিটরিং অফিসারদের আন্তরিকতা প্রয়োজন। এমতাবস্থায় বর্ণিত কার্যক্রম তরান্বিত করার লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে নির্দেশ দেওয়া হলো।

Back to top button