জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষার্থীদের যে নির্দেশ দিল শিক্ষা মন্ত্রণালয়

প্রা'ণঘাতী করো'না ভাই'রাসের সংক্রমণ ঠেকাতে চলতি বছরের জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হচ্ছে না। তবে নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানে মূল্যায়নের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের নবম শ্রেণিতে উত্তীর্ণ করা হবে। শিক্ষা মন্ত্রণালয় এ তথ্য জানিয়েছে।

নিজস্ব পদ্ধতিতে শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করে নবম শ্রেণিতে উত্তীর্ণ করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য স্কুলগুলোকে নির্দেশ দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর (মাউশি)। আজ মঙ্গলবার সব সরকারি ও বেসরকারি স্কুলকে এ চিঠি পাঠানো হয়েছে।

তবে, কি উপায়ে মূল্যায়ন করে শিক্ষার্থীদের পরবর্তী শ্রেণিতে উত্তীর্ণ করা হবে সে বিষয়ে স্কুলগুলোকে কিছুই জানায়নি অধিদপ্তর।

পরীক্ষা ছাড়াই পাসের সার্টিফিকেট পাবে যে শ্রেণির শিক্ষার্থীরা

জানা গেছে, আগামী নভেম্বরের মধ্যে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা সম্ভব না হলে পঞ্চ'ম শ্রেণির অ'পেক্ষমাণ রেজিস্ট্রেশন করা পরীক্ষার্থীদের পাসের সার্টিফিকেট দেয়া হবে। তবে সেসব সার্টিফিকে'টে কোনো জিপিএ বা গ্রেড পয়েন্ট উল্লেখ থাকবে না। সার্টিফিকে'টে শুধু উত্তীর্ণ লেখা থাকবে। সেটি নিয়ে শিক্ষার্থীরা ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তি হতে পারবে।

এর আগে গত ২৫ আগস্ট পিইসি পরীক্ষা বাতিল করা হয়। প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন বলেন, করো'না পরিস্থিতির মধ্যে আম'রা শিক্ষার্থীদের ঝুঁ'কির মধ্যে ফেলতে চাই না। সমাপনী-ইবতেদায়ি পরীক্ষা না হলেও শিক্ষার্থীদের মূল্যায়নের মাধ্যমে ষষ্ঠ শ্রেণিতে উন্নীত করা হবে। স্কুল খোলা সম্ভব হলে পঞ্চ'ম শ্রেণি ছাড়াও অন্য ক্লাসের পরীক্ষাগুলোও নেয়া হবে।

একই কথা বলেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষার সিনিয়র সচিব আকরাম-আল-হোসেন। তিনি বলেন, শিক্ষার্থীদের আম'রা ন্যূনতম ঝুঁ'কির মধ্যে ফেলতে চাই না। পরিস্থিতি যখন স্বাভাবিক হবে তখনই তারা স্কুলে যাবে। যেহেতু কবে প্রতিষ্ঠান খোলা যাবে তা আম'রা জানি না। তাই একাধিক বিকল্প হাতে রেখে শিক্ষা কার্যক্রম শুরুর পরিকল্পনা তৈরির কাজ চলছে।

Back to top button