যুক্তরাষ্ট্রে করোনার ভ্যাকসিন প্রয়োগে বিশাল সুখবর!

করোনার ভ্যাকসিন তৈরিতে বিশ্বের নানা ল্যাবরেটরিতে কাজ করে যাচ্ছে অসংখ্য রিসার্চ গ্রুপ। সম্প্রতি সফলতা আসে যুক্তরাষ্ট্রের একটি রিসার্চ গ্রুপের গবেষণায়। যা দিয়ে ইতোমধ্যে করোনার ভ্যাকসিন পরীক্ষামূলক প্রয়োগ শুরু হয়েছে দেশটিতে।

মা'র্কিন স্বাস্থ্য দফতর জানায়, শুরুতে ৪৫ জন করোনা আক্রান্তের শরীরে ‘রেমডেসিভির’ নামক ওই ওষুধটি প্রবেশ করানো হবে।

গবেষকরা বলেন, এই প্রতিষেধকে কোনো রকম ভাইরাস নেই। ফলে পরীক্ষা অসফল হলেও জীবনহানী বা সাইড এফেক্টের আশ'ঙ্কা নেই।

এর আগে ‘রেমডেসিভির’ নামক ওই প্রতিষেধকের মাধ্যমে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের জীবন বাঁ'চানো সম্ভব হয়। মোট ১৫ জন গুরুতর অ'সুস্থ রোগীর ওপর এই ওষুধ প্রয়োগ করা হলে প্রত্যেকেই সুস্থ হয়ে উঠেন।

এই প্রতিষেধকের গবেষণা দলে ছিলেন ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ডেভিস মেডিকেল সেন্টারের সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ জর্জ থম্পসন।

এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, এই ওষুধ “আইভি” বা ইনজেকশনের মাধ্যমে সরাসরি র'ক্তে প্রবেশ করানো হয়। এটি শরীরে থাকা “আরএনএ পলিমেরাজ” নামের একটি এনজাইম বিকল করে দেয়। অনেক ভাইরাস নিজেদের অনুলিপি তৈরি করতে এই এনজাইম ব্যবহার করে।

তবে যারা আগে থেকেই অ'সুস্থ তাদের এই ওষুধটি কিছুটা সমস্যা করতে পারে। এর কারণে নির্দিষ্ট কিছু রোগীর লিভারে বিষক্রিয়া হতে পারে বলে জানান ওই গবেষক। তবে এখনও গবেষণা প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানান ওই গবেষক।

Back to top button